নতুন খবর

হাইওয়ে আটকে নামাজ পড়ার জন্য সৃষ্টি হল বিশাল জ্যাম! নির্বাক হয়ে দেখলো পুলিশ

কানপুর জাজমাউ (Jajmau) নতুন চুঙ্গী আর বিশ্বকর্মা গেটের পাশে প্রশাসনের উপরে ক্ষুব্ধ মানুষেরা হাইওয়েতে ত্রিপল পেতে নামাজ পড়া শুরু করে দেয়। যার কারণে এলাকায় চরম ট্র্যাফিক জ্যাম সৃষ্টি হয়। আশেপাশের দোকানদারেরা জ্যামে ফেঁসে যাওয়া মানুষদের দড়ির মাধ্যমে জল আর অন্যান্য সামগ্রী পৌঁছে দেয়। পরিস্থিতি এতটাই খারাপ হয় যে, বাসে থাকা যাত্রীরা বাস থেকে নেমে হাঁটা শুরু করে।

আসলে বৃহস্পতিবার চকেরি থানা এলাকাত জাজমাউ এর ট্যানারি অপারেটর, শ্রমিক এবং কর্মচারিরা রাস্তায় নেমে পুলিশ প্রশাসনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে। আর এরই মধ্যে উগ্র ভিড় সড়ক দখল করে নেয় আর নতুন চুঙ্গী এবং বিশ্বকর্মা গেটের কাছে দিল্লী-লখনউ হাইওয়েতে ত্রিপল পেতে নামাজ পড়া শুরু করে দেয়। আর পুলিশ নির্বাক দর্শক হয়ে দাঁড়িয়ে থাকে।

জাজমউতে ২২৫ ট্যানারি অপারেটরদের বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন করার জন্য অফিসাররা পুলিশ নিয়ে এলাকায় পৌঁছায়। এরপর সেখা ট্যানারি অপারেটর, শ্রমীক আর কর্মচারীদের সাথে তাঁদের বচসা শুরু হয়ে যায়। পুলিশ থামানর চেষ্টা করলে প্রচুর পরিমাণে ট্যানারি অপারেটররা শ্রমীকদের সাথে মিলে দিল্লী-লখনউ হাইওয়ে জ্যাম করে দেয়।

১৫ টি থানার পুলিশ বড়বড় অফিসারদের সাথে ঘটনাস্থলে পৌঁছে অবরোধ করা মানুষদের হাঁটানোর চেষ্টা করে। তখন অবরোধ করা মানুষেরা পুলিশের উপর পাথর ছোঁড়া শুরু করে দেয়। তাঁদের মধ্যে আবার কিছু মানুষ হাইওয়েতে ত্রিপল পেতে নামাজ পড়া শুরু করে দেয়। পুলিশ আটকাতে গেলে আবার পাথর ছোঁড়া শুরু হয়। এর কারণে বাধ্যতামূলক পুলিশ পিছনে হটে যায়। প্রায় চার ঘণ্টা চলা এই বিশৃঙ্খলায় হাইওয়েতে বিশাল জ্যামের সৃষ্টি হয়।

Source link

Tags

Related Articles

Close