নতুন খবর

কাশ্মীরি পৌরসভা নির্বাচনে জয়জয়কার বিজেপির !জয়ী হলেন ২৫ জন কাশ্মীরি পন্ডিত।


পাহালগাম কেন্দ্র যেটা দক্ষিণ কাশ্মীরে অবস্থিত সেখান থেকে শেষ বার যখন কোনো হিন্দু পণ্ডিত নির্বাচনে জিতেছিল সেই সময় ছিল ১৯৯৬ সাল। সেই পন্ডিতের নাম ছিল রাকেশ কোল, তিনি কাশ্মীর ছেড়ে দিয়ে বসবাস শুরু করেন জম্মুর জানিপুর এলাকায়। এবার সেই পন্ডিত আবার নির্বাচনে দাঁড়ান এবং জিতেন, তিনি কাশ্মীরের মাত্তান পৌরসভায় নির্বাচনে লড়াই করেছিলেন। তিনি জিতেছেন সেই সুবাধে এবার তিনি পৌরসভার চেয়ারম্যান পদে যোগ দিয়েছেন ২০ ই অক্টোবর। দুজন কাশ্মীরি পণ্ডিত এই বারের নির্বাচনে জিতেছেন কোনো প্রতিদ্বন্দ্বিতা ছাড়াই।

১৯৮৯ সালে কাশ্মীরে একের পর এক জঙ্গি হামলা হয়। বিশেষ করে হিন্দু পণ্ডিতদের উপর অত্যাচার করা হয় সেই জন্য বাকি সব পণ্ডিতদের মত রাকেশ কৌলও কাশ্মীর ছেড়ে চলে যান জম্মুতে। তারপর থেকে তিনি জম্মুতেই বসবাস করা শুরু করে দেন। কিন্তু জম্মুতে বাস করার সত্ত্বেও তিনি কাশ্মীর নির্বাচনে জয়লাভ করায় এই জয় একটি আলাদা মাত্রা পেল বলেই জানা যাচ্ছে। শুধু রাকেশ কৌল একাই নন তিনি ছাড়াও কাশ্মীরে বিজেপির টিকিটে লড়াই করেন আরও ২৪ জন হিন্দু পণ্ডিত, এবং খুশির খবর এটাই যে তারা প্রত্যেকেই জয়লাভ করেন।

এবারের নির্বাচনের আগে বিজেপি কে আটকানোর জন্য তাদের উপর অত্যাচার শুরু করা হয় এমনকি বিজেপির ৫ জন প্রার্থীকে অপহরণও করা হয়। কিন্তু তার সত্ত্বেও আটকাতে পারেন নি বিজেপি কে। কাশ্মীরের সাধারণ মানুষ বিজেপির পাশেই ছিলেন। এবং সবচেয়ে অবাক করা ব্যাপার হল গতবারের থেকে এবার অনেক বেশি সংখ্যাক মানুষ ভোট কেন্দ্রে এসে ভোট দিয়েছেন। এবং বিভিন্ন অত্যাচারের বিরুদ্ধে জবাব দিয়ে তারা বিজেপিকে জয়যুক্ত করেছেন।

রতনলাল ভান যিনি হলেন অল ইন্ডিয়া কাশ্মীরি হিন্দু ফোরামের চেয়ারম্যান তিনি বলেন যে, ৩ লক্ষ পণ্ডিত ভোট দাতা রয়েছেন তাদের কে কোনোভাবেই ভোট দিতে দেওয়া হত না। সবসময় কোনো না কোনো কারনে তাদের আটকে দেওয়া হত। কিন্তু এবারের নির্বাচনে পোস্টাল ব্যালটের মাধ্যমে ভোট হওয়ার ফলে অনেক মানুষ নির্বাচনে অংশ নেন। তাই ফলাফল এইরকম হয়েছে।
#অগ্নিপুত্র



24 Ghanta

24 Ghanta Live News

Tags

Related Articles

Close